দামুড়হুদা অফিসঃদামুড়হুদা উপজেলার নতিপোতা ইউনিয়নের করিমপুর গ্রামের এক গৃহবধূ (২৪) কে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ধর্ষণ চেষ্টা সহ স্বর্ণালংকার ও নগদ টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগে  দামুড়হুদা মডেল থানার একটি  অভিযোগ দায়ের করেছেন গৃহবধূ।
ভুক্তভোগী পরিবার ও লিখিত অভিযোগে জানা যায়, গত রোববার রাত আনুমানিক সাড়ে ১১টার দিকে দামুড়হুদা  করিমপুর গ্রামের এক গৃহবধূর ঘরে  কৌশলে প্রবেশ করে নতিপোতা গ্রামের আনছার আলির ছেলে টুটুল (৩০)। এসময় গৃহবধূ ও তার স্বামী কে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে গৃহবধূ কে জোর পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। গৃহবধূর স্বামী বাধা দিতে গেলে টুটুল তাকে মারপিট করে জখম করে। ধর্ষণ চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে টুটুল গৃহবধূর গলায় থাকা ৩৫হাজার টাকা মূল্যের স্বর্ণের চেইন, ২৫হাজার টাকা মূল্যের স্বর্ণের কানের দুল ও তোষকের নিচে গচ্ছিত থাকা নগদ ৫০হাজার টাকা ছিনিয়ে নেই। গৃহবধূর ডাক চিৎকারে টুটুল পালিয়ে যায়। পরে এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিদের জানিয়ে স্থানীয় ভাবে আপোষ মিমাংসায় ব্যর্থ হলে  গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে  ঐ গৃহবধূ নওজে বাদী হয়ে দামুড়হুদা মডেল  থানায় অভিযোগ দায়ের করেন ।
দামুড়হুদা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুল খালেক জানান, করিমপুর গ্রামের এক গৃহবধূ অভিযোগ দায়ের করেছে। তদন্ত পূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।