দর্শনা অফিসঃ দর্শনার ফুলবাড়ী সীমান্তে চোরাচলান বিরোধী অভিযান চালিয়েছে বিজিবি। এ অভিযানে বাংলাদেশীয় ১ হাজার টাকার ৯৬ হাজার টাকার জাল নােট ও ২২ কেজি গাঁজা ১ টি মোটরসাইকল সহ ৩ জন চােরাচালানীকে আটক করেছে চুয়াডাঙ্গা-৬ বিজিবি। শনিবার দিবাগত রাতে বিজিবি বিশেষ অভিযানে এই গুলো আটক করা হয়। আটককৃতরা হলো দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনা থানাধীন সীমান্তবর্তী কুড়ুলগাছি ইউনিয়নের কুড়ুলগাছি গ্রামের নূরুল হুদার ছেলে জাল টাকার নােট তৈরী চক্রের সদস্য আব্দুর সাত্তার (৩৮), গাঁজা ব্যবসায়ী একই উপজেলার সীমান্তবর্তী ঠাকুরপুর গ্রামের নূর মােহাম্মদের ছেলে নওশাদ আলী ওরফে গনি (৩৫) ও জুলফিকার আলীর ছেলে সাইফুল ইসলাম (২৫)। গতকাল শনিবার দুপুর ১ টার দিকে তাদেরকে দর্শনা থানায় সাের্পদ করে মামলা দায়ের করা হয়েছে।
শনিবার দুপুর ১২ টার দিকে চুয়াডাঙ্গা-৬ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্ণেল মােঃ খালেকুজ্জামান পিএসসি জানান, শুক্রবার সন্ধ্যা ৭ টার দিকে গােপন সংবাদের ভিত্তিতে দামুড়হুদা উপজেলার সীমান্তবর্তী কুড়লগাছি গ্রামে জাল টাকার নােট তৈরী চক্রের সদস্য আব্দুর সাত্তারকে ১ হাজার টাকার নােট ৯৬ হাজার জাল টাকা সহ আটক করা হয়। এ সময় পালিয়ে যায় জাল টাকা তৈরি চক্রের অন্য সদস্য কুড়ুলগাছি গ্রামের হান্নান ও রানা। এছাড়া এদের ঝিনাইদহ জাল টাকার নোট তৈরীর মেশিন সহ একটি চক্র রয়েছে। অন্য সদস্যদেরকে ধরতে অভিযানে বের হলে ঠাকুরপুর সীমান্ত থেকে পৃথক ২ টি স্থান থেকে ২২ কেজি ভারতীয় গাঁজা সহ নওশদ আলী ওরফে গনি ও  সাইফুল ইসলামকে আটক করা হয়। গতকাল শনিবার দুপুর ১ টার দিকে বিজিবি বাদী হয়ে দর্শনা থানায় মামলা দায়ের করেছে। পলিশ তদন্ত পূর্বক জাল টাকা চক্রের সাথে জড়িত আরও আসামীদের ধরতে  সক্ষম হবে বলে আশা করেন।