স্টাফ রিপেটার্র: বণার্ঢ্য নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে চুয়াডাঙ্গায় পালন করা হয়েছে দর্শক প্রিয় জয়যাত্রা টেলিভশনের ২য় বর্ষপূর্তি। বর্ষপূতি উপলক্ষ্যে চুয়াডাঙ্গায় দিনভর বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষের ফুলেল শুভেচ্ছা,কেক কাটা ও আলোচনা সভাসহ নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।
জয়যাত্রা টেলিভিশনের শুভক্ষন পালনে রোববার সকাল থেকেই জেলা অফিসার্স ক্লাবেএ আয়োজন করা হয়।
দ্বিতীয় বর্ষ পেরিয়ে তৃতীয় বর্ষ পদার্পণের অনুষ্ঠানমালায় সকাল থেকেই যোগদেন বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও পেশাজীবীসংগঠনের নেতৃবৃন্দ। তারা স্ব স্ব প্রতিষ্ঠানেরপক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান জয়যাত্রা টেলিভিশনকে। পরে বেলা ১২টায় একই স্থানে জয়যাত্রা টেলিভিশনের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর আলোচনা সভা শুরু হয়। জয়যাত্রা টেলিভিশনের চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রতিনিধি শরীফউদ্দীন হাসু’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার। বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবু তারেক, পৌর মেয়র ওবায়দুর রহমান চৌধুরি জিপু, চুয়াডাঙ্গা জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক সাবেক মেয়র রিয়াজুল ইসলাম জোয়ার্দ্দার টোটন, জেলা দূর্ণীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি অধ্যক্ষ সিদ্দিকুর রহমান,দৈনিক পশ্চিমাঞ্চলের সম্পাদক প্রকাশক আজাদ মালিতা।
বক্তারা বলেন, মাত্র দুই বছরে জয়যাত্রা টেলিভিশনের অনুষ্ঠানসহ নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশন সাধারণ দর্শকদের আকৃষ্ঠ করেছে। তাদের নিরপেক্ষতা এখন উদহারণ সৃষ্টি করারমত। টেলিভিশনটির কাছে চুয়াডাঙ্গার মুক্তিযুদ্ধ, উন্নয়ন, অনিয়ম-দূর্নীতিসহ সমাজের নানা অসঙ্গতি আর ওবেশি বেশি তুলে ধরার আহ্বান জানানো হয়।
আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন সুজনের সাধারন সম্পাদক মাহাবুল ইসলাম সেলিম,কালেরকন্ঠের জেলা প্রতিনিধি মানিক আকবর, যমুনা টিভির জেলা প্রতিনিধি আরিফুল ইসলাম ডালিম, দৈনিক প্রথম রাজধানীর প্রকাশক আনোয়ার হোসেন,দৈনিক আকাশ খবরের সম্পাদক জান্নাতুল আউলিয়া নিশি ও প্রবীন সাংবাদিক শাহার আলী। আলোচনা সভায় সঞ্চালনায় ছিলেন সাংবাদিক মেহেরাব্বিন সানভী।
আলোচনাসভা শেষে জয়যাত্রা টেলিভিশনের শুভক্ষণের কেক কাটেন আমন্ত্রিত অতিথিরা।