স্টাফ রিপোর্টার:চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে অভিযান চালিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। আজ রোববার দুপুরে কুষ্টিয়া সার্কেলে একটি দল এ অভিযান পরিচালনা করেন। অভিযানে সরকারি ওষুধ নেওয়ার অভিযোগে এক যুবককে হাতেনাতে আটক করা হয়। পরে তাকে ভ্রাম্যমান আদালতে এক মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়।কারাদণ্ডপ্রাপ্ত জুয়েল রানা (২৭) সদর উপজেলার বেলগাছি মুসলিমপাড়ার আশু স্বর্ণকারের ছেলে।

অভিযান সূত্রে জানা গেছে, হাসপাতালের অনিয়মের তথ্য পেয়ে দুদকের একটি দল অভিযান চালায়। অভিযানে হাসপাতালের নথিপত্র, উপস্থিতি তালিকা, রান্না ঘর, প্যাথলজি, ওষুধের কক্ষসহ হাসাপাতেলর বিভিন্ন দিকে অভিযান চালানো হয়। এসময় জুয়েল রানাকে আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে তাকে একমাসের কারাদন্ড দেন আদালতের বিচারক ও চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মুহাম্মদ সাদিকুর রহমান।
দুদকের কুষ্টিয়া সার্কেলের সহকারী পরিচালক হোসেন ও উপ-সহকারী পরিচালক নাছরুল্লাহ হুসাইন জানান, হটলাইনে তথ্য পেয়ে হাসপাতালের অনিয়ম অনুসন্ধানে অভিযান চালানো হয়। এসময় সরকারি ওষুধ নামে বেনামে সংগ্রহ করার অভিযোগে এক যুবককে আটক করা হয়। এছাড়া রান্না ঘরে খাবারের ওজন কম দেয়ার চিত্র পাওয়া যায়।
ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক মুহাম্মদ সাদিকুর রহমান জানান, কৌশলে সরকারি ওষুধ উত্তোলন করে সংগ্রহ ও গণউপদ্রব সৃষ্টি করার অভিযোগে অভিযুক্ত যুবক জুয়েল রানাকে দন্ডবিধির ২৯১ ধারায় ১ মাসের কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।পরে তাকে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়।