চুয়াডাঙ্গা পৌর ডিগ্রী কলেজে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ জাতীয় দিবস উদযাপন
স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গা পৌর ডিগ্রী কলেজে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ জাতীয় দিবস উদযাপন করা হয়েছে। গতকাল রোববার (৭ মার্চ) সকালে  অধ্যক্ষ আবু রাসেদ এর নেতৃত্তে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুস্পস্থপক অর্পণ করে শ্রদ্ধা জানিয়ে অনুষ্ঠান শুরু হয়। পরে, কলেজ অডিটরিয়ামে ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ওপর আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন কলেজ অধ্যক্ষ আবু রাসেদ।
চুয়াডাঙ্গা পৌর ডিগ্রী কলেজে আলোচনা সভায় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের প্রভাষক ফাতেমাতুজ আয়েশা খান নির্ঝর এর উপস্থাপনায় আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, সহকারী তাহেরুল ইসলাম,আতিয়ার রহমান,মখলেছুর রহমান,সিনিয়র প্রভাষক খসরুজ্জামান সবুজ,নাজনীন আরা,তৌহিদুজ্জামান টিপু,হাসিবুল ইসলাম, প্রদর্শক শিহাব রানা।উপস্থিত ছিলেন প্রভাষক শানজিদা শারমীন,কুতুব উদ্দিন,ফারহানা দিবা কান্তা,কামরুজ্জামান কালাম,নাজমা পারভীন,মাসুদা পারভীন আন্নি,আব্দুর রহিম,ফয়েজ হাসান সুমন,প্রদর্শক সেকেন্দার আলি,অফিস সহকারী ওহিদুল ইসলাম, শরীফুল ইসলাম,ল্যাব সহকারী আবুল কালাম আজাদ,ইমন মাহামুদ সহ কলেজের কর্মকর্তা এবং কর্মচারী বৃন্দ।
সভায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবর্ষের বিভিন্ন কর্মসূচী সম্পর্কে আলোচনা করা হয়। ৭ই মার্চের ভাষণ সব শিক্ষার্থী হৃদয়ে ধারণ করবে বলে আশা ব্যক্ত করেন বক্তারা।
অধ্যক্ষ আবু রাসেদ সভাপতির বক্তব্যে বলেন, ৭ই মার্চের ভাষণে বাঙালি জাতী দিশা খুঁজে পেয়েছিলো, ভাষণের মধ্যে বাংলাদেশের স্বাধীনতার মূল মন্ত্র নিহিত ছিল,  যে মন্ত্রবলে সেদিন বীর বাঙালি সশস্ত্র পাকিস্তানিদের উপর ঝাপিয়ে পড়েছিল এবং ছিনিয়ে নিয়েছিল আমাদের লাল সবুজ পতাকা স্বাধীন বাংলাদেশ। আজ ৭ই মার্চের ভাষণ জাতীসংঘের ইউনেস্কো স্বীকৃতিপ্রাপ্ত। বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা বিনির্মাণের স্বপ্ন নিয়ে বাংলাদেশ আজ এগিয়ে চলেছে। বাঙালি জাতিকে আজ হাতছানি দিচ্ছে উন্নত জাতি রাষ্ট্র।