স্টাফ রিপোর্টার:চুয়াডাঙ্গা পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) উপলক্ষে আলোচনা সভা, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ শুক্রবার বাদ মাগরিব শহরের কোর্ট জামে মসজিদে এ দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। মিলাদ ও দোয়া মাহফিল পরিচালনা করেন কোর্ট জামে মসজিদে ইমাম মুফতি মো. রুহুল আমিন।
জেলা প্রশাসন ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. জাহিদুল ইসলাম, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক এবিএম রবিউল ইসলাম ও ধর্মপ্রাণ মুসল্লীরা এসময় উপস্থিত ছিলেন।

কোর্ট জামে মসজিদে ইমাম মুফতি মো. রুহুল আমিন বলেন মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামিন বিশ্ব শান্তি ও মুক্তির দূত হিসেবে বিশ্ব নবী (সাঃ)-কে দুনিয়ায় প্রেরণ করেছেন। পাপাচার, অত্যাচার, মিথ্যা, কুসংস্কার ও সংঘাত জর্জরিত পৃথিবীতে মহানবী (সাঃ) মানবতার মুক্তিদাতা ও ত্রাণকর্তা হিসেবে আবির্ভূত হয়েছিলেন। অন্ধকার যুগের সকল আঁধার দূর করে সত্য ও ন্যায়ের আলো জ্বালিয়েছিলেন তিনি।
ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক এবিএম রবিউল ইসলাম বলেন, মহানবী (সাঃ)-এর শিক্ষায় আমাদের জীবন আলোকিত হোক। মহানবীর (সাঃ) শিক্ষা অনুসরণে অশান্ত, দ্বন্দ-সংঘাতমুখর পৃথিবীতে শান্তি ও কল্যাণ নিশ্চিত হবে।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. জাহিদুল ইসলাম বলেন, হযরত মুহাম্মদ (সা.) তার রেখে যাওয়া আদর্শ মেনে চলা যায় তাহলে আমাদের মানব জীবন পরিপূর্ণ হবে। ফ্রান্সে হযরত মুহাম্মদ (সা.) নিয়ে অবমাননার জন্য নিন্দা প্রকাশ করেছেন।
তিনি আরও বলেন ১৯৯২ সালে বিধর্মী লেখক মাইকেল এইচ. হার্ট বিশ্বের শ্রেষ্ঠ ১০০জন মনীষীর জীবনী নিয়ে একটি বই প্রকাশ করেন। সেই বইয়ে আমাদের প্রিয় নবী হযরত মুহাম্মদ(সাঃ) এর জীবনী সবার প্রথমে রাখেন একজন বিধর্মী লেখক।