স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গায় জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত নিম্নচাপের প্রভাবের ঝুঁকি মোকাবিলায় স্থায়ী দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা নির্দেশাবলী (এসওডি) অনুযায়ী সার্বিক প্রস্তুতি সম্পন্ন করতে জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির জরুরি সভার আয়োজন করে চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসন। সভায় সভাপতিত্ব করেন চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার। সভাপতি বক্তব্যে তিনি বলেন, যদি আমরা পুরোপুরি সমুদ্র উপকূলীয় অঞ্চলের নয়। তুবও কেন জানি, দুযোর্গগুলো আমাদের উপর দিয়েই যায়। তাই আগে থেকেই আমাদের সতর্ক হওয়া প্রয়োজন। সংশ্লিষ্ট দপ্তরগুলোকে সতর্কতামূলক নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এছাড়া সব স্কুল-কলেজ-মাদ্রাসাগুলো যদি প্রয়োজন হয়, তাহলে আশ্রয় কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত করার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। তিনি আরো বলেন, যদিও সম্ভাবনা নেয়, তবুও যদি প্রয়োজন পরে, তাহলে পর্যাপ্ত পরিমাণে ত্রাণ ব্যবস্থা আছে। চাল ও নগদ অর্থও মজুদ আছে। জেলায় শুকনা খাবারও আছে। সবমিলিয়ে আমরা সবোচ্র্চ সতর্কতা অবলম্বন করা হবে।
সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ইয়াহ ইয়া খান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) আবু তারেক, চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ সাদিকুর রহমান, দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার দিলারা রহমান, আলমডাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার লিটন আলী, জীবননগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার , নেজারত ডেপুটি কালেক্টর আমজাদ হোসেন, জেলা ত্রাণ ও পুর্নবাসন কর্মকর্তা খাইরুল আনাম, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের উপ সহকারী পরিচালক আব্দুস সালাম, জেলা তথ্য অফিসার আমিনুল ইসলামসহ সভায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্যবৃন্দ, সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন বিভাগের প্রধানগণ, যুব ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্য এবং সংবাদমাধ্যম কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।