স্টাফ রিপোর্টার:বিএনপিকে গণতন্ত্রের পথে ফিরে আসার আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপির মতো মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী ভাবাদর্শের রাজনৈতিক দলের মুখে গণতন্ত্রের কথা শোভা পায় না। তাদের কাছে গণতন্ত্র ছিল, ‘হ্যাঁ’ এবং ‘না’ ভোটের গণতন্ত্র। আজ মঙ্গলবার শহীদ নূর হোসেন দিবসে রাজধানীর গুলিস্তানে নুর হোসেন চত্বরে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।

বিএনপিকে উদ্দেশ্য করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আরো বলেন, গণতন্ত্রের পথে ফিরে আসুন, গণতন্ত্রকে বিনষ্টের চক্রান্ত থেকে বেরিয়ে আসুন। ষড়যন্ত্র আর পিছনের দরজা দিয়ে ক্ষমতা দখলের অপরাজনীতি পরিহার করুন। আসুন বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আগামী প্রজন্মের জন্য মুক্তিযুদ্ধের চেতনাভিত্তিক একটি অসাম্প্রদায়িক প্রগতিশীল উন্নত-সমৃদ্ধ রাষ্ট্র বিনির্মাণে ঐক্যবদ্ধ হই।

নূর হোসেনের স্মৃতিচারণ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, সেদিন নূর হোসেনের শরীর ছিল জীবন্ত রাজনৈতিক পোস্টার। তার বুকে ও পিঠে লেখা স্লোগানে প্রতিধ্বনিত হচ্ছিল স্বৈরাচারের পতন এবং গণতন্ত্র মুক্তির প্রতিধ্বনি। পুলিশের গুলিতে ক্ষত-বিক্ষত শহীদ নূর হোসেনের দেহে লিপিবদ্ধ রক্তস্নাত স্লোগান রণধ্বনি পৌঁছে গিয়েছিল বাংলার প্রতিটি প্রান্তরে, প্রতিটি মানুষের হৃদয়ে। শহীদ নূর হোসেনের রক্তাক্ত ছবি গণতন্ত্রকামী বাঙালির মনে সাহস আর সংগ্রামের বহ্নিশিখা জ্বালিয়ে দিয়েছিল।

নূর হোসেন হয়ে উঠেছিল সাহসের প্রতীক, গণতন্ত্রের জন্য আত্মোৎসর্গকারী একজন বীর যোদ্ধা। বন্দি গণতন্ত্র শৃংখল মুক্ত হয়েছে নূর হোসেনের রক্তে। গণতন্ত্র মুক্তি পেলেও প্রাতিষ্ঠানিক রূপদান হোক এবারের নূর হোসেন দিবসের অঙ্গীকার।